Jagannath Sarkar: তৃনমুল বাহিনীর কাছে তারা খেলেন বিজেপি সাংসদ জগন্নাথ সরকার

শান্তিপুর,নদীয়া: পঞ্চায়েতে অনাস্থা ভোট কে কেন্দ্র করে ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়ালো নদিয়ার শান্তিপুর থানার বেলগরিয়া ২ নং পঞ্চায়েতে। ঘটনাস্থলে এসে তৃণমূল বাহিনীর কাছে তারা খেলেন বিজেপি সাংসদ জগন্নাথ সরকার। নিরাপত্তা রক্ষীরা কোনওরকমে তাকে উদ্ধার করে নিয়ে যায়। এর পাশাপাশি আক্রান্ত একাধিক বিজেপি নেতা কর্মী সমর্থক।

সূত্রের খবর, শান্তিপুর থানার বেলঘড়িয়া গ্রাম পঞ্চায়েতের অনাস্থা ভোটের আবেদন করে বিজেপি। সেইমতো প্রশাসনের তরফ থেকে আজ বেলঘড়িয়া 2 নম্বর গ্রাম পঞ্চায়েতের অনাস্থা ভোট শুরু হয়।

সকাল থেকে ঘটনাস্থলে উপস্থিত ছিল বিশাল পুলিশবাহিনী। তৃণমূল কর্মীরা একে একে ঘটনাস্থলে জড়ো হয়। ঘটনাস্থলে এসে উপস্থিত হয় বিজেপি সাংসদ জগন্নাথ সরকার। এরপর এই উত্তপ্ত হয়ে ওঠে পরিস্থিতি। জগন্নাথ সরকার কে দেখেই পুলিশের সামনেই তারা করে যায় তৃণমূল কর্মীরা। অবশেষে তারা খেয়ে নিরাপত্তারক্ষীরা কোনরকমে সাংসদদের নিয়ে ঘটনাস্থল ছেড়ে চলে যায়।

পাশাপাশি বিজেপির একাধিক নেতা কর্মী আক্রান্ত হয়। ঘটনায় অভিযোগের তীর তৃনমূলের বিরুদ্ধে। ঘটনাস্থলে বিশাল পুলিশবাহিনী।

হামলার ঘটনায় তীব্র ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন, সাংসদ জগন্নাথ সরকার। তিনি বলেন, ‘পুলিশ প্রশাসন কার্যত শাসকদলের দল দাসে পরিণত হয়েছে।’ যদিও ঘটনার কথা অস্বীকার করেছে তৃণমূল। তাদের দাবি, সুষ্ঠুভাবে নির্বাচন চলছিল। কিন্তু, উদ্দেশ্যপ্রণোদিত ভাবেই BJP সাংসদ এসে পরিস্থিতি উত্ত্যক্ত করার চেষ্টা করেছে। শান্তিপুর ব্লক তৃণমূল কংগ্রেসের দাবি, জগন্নাথ সরকার আস্থাভোট চলাকালীন ওখানে আইন-শৃঙ্খলার অবনতি ঘটে।উত্তেজনার খবর পেয়েই ঘটনাস্থলে আসেন রানাঘাট SDPO প্রবীর মণ্ডল। ঘটনার জেরে উত্তপ্ত এলাকা।

Leave a Reply

Your email address will not be published.