Khanakul Flood Situation: বুধবার দুপুরেই বন্যা পরিস্থিতি পরিদর্শনে খানাকুল যাচ্ছেন মুখ্যমন্ত্রী,শুনবেন দুর্গতদের দুর্দশার কথা

নদীয়া নিউজ ২৪ ডিজিটাল: গত কয়েকদিনের বৃষ্টিতে ছন্নছাড়া রাজ্যের বিভিন্ন জেলা। মূলত গত সপ্তাহের বৃহস্পতিবারের বৃষ্টিই ছাড়িয়ে গিয়েছে সমস্ত রেকর্ড। যার জেরে নদীবাধ ভেঙে প্লাবিত বহু এলাকা। কোনও কোনও জায়গায় জল আটকে রয়েছে এখনও। এই বন্যা বিধ্ধস্ত এলাকাগুলির মধ্যে উল্লেখযোগ্য হল খানাকুল। চার পাঁচ দিন কেটে গেলেও এখনও খানাকুলের মানুষজনের বাড়িঘর,চাষের জমি জলের তলায়। আজ অর্থাৎ বুধবার খানাকুলের বন্যা পরিস্থিতি পরিদর্শনে যাবেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (CM Mamata Banerjee)।

জেলা তৃণমূল সভাপতি দিলীপ যাদব জানিয়েছেন, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে তাঁর কথা হয়েছে। বুধবার খানাকুলের প্লাবিত এলাকা পরিদর্শনের পাশাপাশি বন্যাদুর্গতদের সঙ্গেও কথা বলবেন তিনি। এর আগে সোমবার সকাল থেকে মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশে সোমবার সকাল থেকে বায়ুসেনার (Air Force) হেলিকপ্টারে করে প্লাবিত এলাকার বাসিন্দাদের উদ্ধারকাজের ব্যবস্থা করেন দিলীপ যাদব। তিনি জানান, জলের স্রোত এতটাই বেশি যে স্পিডবোটে উদ্ধারকাজ চালানো কার্যত অসম্ভব ছিল। তাই বায়ুসেনার কপ্টারকে কাজে লাগাতে হয়েছে।

সোমবার বন্যা পরিস্থিতি (Flood Situation) নিয়ে নবান্নে মন্ত্রিসভার বৈঠক করেন মুখ্যমন্ত্রী। দুর্গতদের যাতে ত্রাণের কোনও অভাব না হয়, তার ব্যবস্থা করতে মন্ত্রীদের নির্দেশ দিয়েছেন তিনি। যে সমস্ত জেলায় মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে, আর্থিক সাহায্য দেওয়ার জন্য মৃতদের তালিকাও তৈরি করার নির্দেশ দেন তিনি। তবে দূর থেকে প্রতিকূলতা বুঝে ওঠা সম্ভব নয় বলেই মনে করেন মুখ্যমন্ত্রী। তাই এবার নিজেই খানাকুলের প্লাবিত এলাকা পরিদর্শনে যাচ্ছেন। নবান্ন সূত্রে খবর,আকাশপথে হাওড়া জেলার উদয়নারায়নপুর ও আমতা, হুগলির গোঘাট, খানাকুল ১ ও ২ নম্বর ব্লক পরিদর্শন করবেন তিনি। কোথাও কোনও ফাঁক আছে কিনা তাও দেখবেন। মানুষ ত্রান–সহ অন্যান্য পরিষেবা পাচ্ছেন কিনা সেটাও তিনি খতিয়ে দেখবেন।

উল্লেখ্য, এক নাগাড়ে ভারী বর্ষণ ও ডিভিসি থেকে জল ছাড়ার কারণে এই পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে। এখন জল বাড়ছে ভাগীরথী নদীতে। বাড়ছে কালনার নদীর দুই পাড়ের ভাঙনও। পূর্বস্থলী ১ ব্লকের নসরতপুর পঞ্চায়েতের অন্তর্গত জালুইডাঙা এবং নদীর ওপারে মনমোহনপুর ও কিশোরীগঞ্জ এলাকার মানুষজন ভাগীরথীর ভাঙনে জর্জরিত। এই পরিস্থিতিতে এবার মানুষের পাশে দাঁড়াতে পরিদর্শনে আসছেন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী।

Leave a Reply

Your email address will not be published.