উত্তপ্ত অভিষেকের ত্রিপুরা সফর, কালো পতাকা দেখানো হল দেবাংশু-সুদীপদের

নদীয়া নিউজ ২৪ ডিজিটাল: অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের সফর ঘিরে সরগরম ত্রিপুরা।ত্রিপুরেশ্বরী মন্দির থেকেই সফরের সূচনা করবেন অভিষেক বন্দোপাধ্যায়। তার আগেই একাধিক জায়গায় তাঁর কনভয় আটকানো হয়, পথে নেমে বিক্ষোভ দেখান স্কুল পড়ুয়ারাও। গাড়ি থেকে নেমে বিক্ষোভকারী পড়ুয়াদের সঙ্গে কথা বলেন তিনি। এমনকি ত্রিপুরশ্বরী মন্দিরের সামনেও অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের নামে গো ব্যাক স্লোগান দেওয়া হয়।

প্রশান্ত কিশোরের সংস্থা আই-প্যাকের ২৩ জন কর্মীকে হোটেলে আটকে রাখার ঘটনা সামনে আসার পরই সরব হন তৃণমূল নেতৃত্ব। রবিবার রাতেই অভিষেকের সফরের আগে আগরতলা বিমানবন্দর থেকে আগরতলা শহর পর্যন্ত একাধিক জায়গায় তৃণমূল কংগ্রেসের তরফ থেকে লাগানো হয়েছিল পোস্টার, ব্যানার, ফ্লেক্স। যদিও সেই সব পোস্টার,ব্যানার ছিঁড়ে ফেলা হয়েছে বলে অভিযোগ ত্রিপুরা তৃণমূল নেতৃত্বের।

এরই মধ্যে অভিষেককে কালো পতাকা দেখানো হল ত্রিপুরায়। এক নয়, তিন-তিনটি জায়গায় কালো পতাকা দেখানো হয় অভিষেককে। ত্রিপুরেশ্বরী মন্দিরে একদিকে যেমন তৃণমূল সমর্থকরা জমায়েত করে খেলা হবে স্লোগান দিচ্ছেন, তেমনই বহু সাধারণ মানুষ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের নামে গো ব্যাক স্লোগান দেওয়া শুরু করেন। তাদের অভিযোগ, ধর্মীয় স্থানে রাজনীতি করতে চাইছেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। রাজ্যে অশান্তি সৃষ্টি করতে চাইছে তৃণমূল। শুধু তাই নয়, বেশ কয়েকদিন ধরে ত্রিপুরায় ঘাঁটি গেড়ে থাকা তৃণমূল যুব নেতা দেবাংশু ভট্টাচার্য ও সুদীপ রাহার উপর হামলা চালানো হয় বলে অভিযোগ।

অভিষেককে স্বাগত জানাতে সচেষ্ট ত্রিপুরা তৃণমূল নেতৃত্ব। রাস্তার মোড়ে মোড়ে হাজির দলীয় কর্মীরা। বিজেপি অবশ্য তাদের বিরুদ্ধে ওঠা সমস্ত অভিযোগ অস্বীকার করেছে। তাদের বক্তব্য বিজেপির কোনও কর্মী এর সাথে জড়িত নয়। তাঁদের কটাক্ষ, ত্রিপুরা রাজ্যে জোড়া ফুলের কোনও সংগঠন নেই। তাই জোর করে এইসব মিথ্যা অভিযোগ আনা হচ্ছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *