‘যশের সঙ্গে আমি ভালো অভিভাবকত্ব কাটাচ্ছি’,ঈশানের পিতৃপরিচয় নিয়ে মুখ খুললেন নুসরত জাহান

নদীয়া নিউজ ২৪ ডিজিটাল: মা হওয়ার পর এই প্রথমবার জনসমক্ষে এলেন অভিনেত্রী-সাংসদ নুসরত জাহান। নুসরতের সন্তানের পিতৃপরিচয় নিয়ে গত ক’মাস ধরেই চর্চা চলছে। মা হওয়ার পর এই চর্চা আরও জোরালো হয়েছে। অবশেষে সমস্ত চর্চার জবাব দিলেন সাংসদ অভিনেত্রী নুসরত।

বুধবার ভবানিপুরের একটি বিপনীর উদ্ভোধন করতে আসলে সেখানে নুসরতের সন্তানের বাবা কে এই প্রশ্নের উত্তরে নুসরত জানান, ‘বাবাকে সেটা বাবা জানে।’ এছাড়াও তিনি বলেন, ‘যশের সঙ্গে আমি ভালো অভিভাবকত্ব কাটাচ্ছি।’

সন্তানের জন্মের পর জীবন পুরোপুরি বদলে গিয়েছে নুসরতের। তিনি বললেন, ‘২৬ শে অগস্টের আগে এবং পরে আমার জীবনের ইতিহাস, ভূগোল সবটাই পালটে গিয়েছে… আমি খুব ভালো একটা সময় কাটাচ্ছি, এটা নতুন একটা জীবন বলতে পারেন’। ঈশানকে নিয়েই এখন সারাটা দিন কাটছে তাঁর, জানালেন তারকা সাংসদ।

উল্লেখ্য,গর্ভাবস্থা থেকে হাসপাতালে ভর্তি পর্যন্ত বান্ধবী নুসরতকে কাছছাড়া করেননি তাঁর বিশেষ বন্ধু যশ। ছেলে ঈশানকে নিয়ে বাড়ি ফেরার দিনও নুসরত জাহানের সঙ্গে ছিলেন যশ। দায়িত্ববান পুরুষের মতো নুসরতের ছেলেকে নিজের কোলে নিয়ে গাড়িতে ওঠেন অভিনেতা। সারাক্ষণ নুসরতের ছায়া সঙ্গী হয়ে থেকেছেন তাঁর বিশেষ বন্ধু যশ দাশগুপ্ত। ।অন্তঃসত্ত্বা নুসরতের গর্ভাবস্থার প্রতিটি পর্বে তাঁর যথেষ্ট খেয়াল রেখেছেন বন্ধু যশ, তা অভিনেত্রীর ইনস্টা স্টোরিতে বিভিন্ন সময় প্রকাশ্যে এনেছেন যশরত।

এদিন ঈশানের পিতৃপরিচয় ছাড়াও কাজে ফেরার বিষয়ে নুসরত জানান, ‘আমার নিজের প্রতি, পরিবারে প্রতি এবং আমার মানুষজনের প্রতি (সংসদীয় এলাকার) দায়িত্ব রয়েছে, তাই আমাকে তো কাজে ফিরতেই হবে’। যোগ করেন, ‘অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার জেরে আমি সাংসদের বাদল অধিবেশনে আমি যোগ দিতে পারিনি, তবে আমি শীতকালীন অধিবেশনে যোগ দিতে দিল্লি অবশ্যই যাব’।

Leave a Reply

Your email address will not be published.