প্রধানমন্ত্রীর বাংলা ছাড়ার কিছুক্ষনের মধ্যেই আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়কে তলব করল কেন্দ্র

নদীয়া নিউজ ২৪ ডিজিটাল: রাজ্যের মুখ্যসচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়কে দিল্লিতে ডেকে পাঠালো কেন্দ্র । শুক্রবার রাজ্যের মুখ্যসচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়কে চিঠি পাঠিয়েছে কেন্দ্র চিঠিতে মুখ্যসচিবকে ছেড়ে দিতে রাজ্যকে নির্দেশ দিয়েছে কেন্দ্র । অবিলম্বে আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়কে দিল্লির নর্থ ব্লকে রিপোর্ট করতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে । ক্যাবিনেটের নিয়োগ কমিটির সিদ্ধান্তেই ডেকে পাঠানো হয়েছে আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়কে ।

উল্লেখ্য,সম্প্রতিই মুখ্যসচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়ের কর্মজীবন শেষ হওয়ার কথা ছিল । কিন্তু রাজ্যের অনুরোধে অবসরের সময়সীমা তিন মাস বাড়ানো হয় । যা ১ জুন থেকে কার্যকর হওয়ার কথা । কিন্তু এর আগেই দিল্লিতে ডেকে পাঠানো হল আলাপনকে ।

শুক্রবার তাঁর কাছে কেন্দ্রের তরফে পাঠানো চিঠিতে বলা হয়েছে, অ্যাপয়েনমেন্টস অফ ক্যাবিনেট কমিটির সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, ১৯৮৭ ব্যাচের IAS অফিসার আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়কে (পশ্চিমবঙ্গ ক্যাডার) কেন্দ্রীয় সরকারের অধীনে কাজ যোগ দেওয়ার জন্য নির্দেশ দেওয়া হচ্ছে। পাশাপাশি চিঠিতে রাজ্য সরকারকে, আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়কে দ্রুততার সঙ্গে রিলিজ করার অনুরোধ করা হয়েছে। ৩১ মে সকাল ১০টায় নর্থ ব্লকের মিনিস্ট্রি অফ পার্সোনাল অ্যান্ড ট্রেনিংয়ে রিপোর্টিং করার নির্দেশ দিতে বলা হয়েছে তাঁকে।

উল্লেখ্য, আপাতত মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে দিঘায় রয়েছেন আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়। আজ ইয়াসে ক্ষতিগ্রস্ত ৩ জেলা পরিদর্শন করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। দিঘায়ইয়াস পরিস্থিতি নিয়ে প্রশাসনিক বৈঠক করেন তিনি। দিঘার সমস্ত দায়িত্ব মুখ্যসচিবকে দিয়ে মমতা বলেন, ‘দিঘায় প্রচুর ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। কিন্তু দিঘা উন্নয়ন পর্ষদের এখন চেয়ারম্যান নেই। এই পরিস্থিতিতে দিঘা উন্নয়ন পর্ষদের দায়িত্ব মুখ্যসচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়কে দিলাম। কারণ, দিঘায় যে ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে, তার জন্য নতুন পরিকল্পনা করে কাজ করতে হবে।’

এদিকে আজকের প্রধানমন্ত্রীর সাথে বৈঠকে গরহাজিরা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছে বিজেপি । প্রধানমন্ত্রীর ডাকা বৈঠকে কি করে একজন IAS অফিসার কোনও কারণ না দেখিয়ে গরহাজির থাকতে পারেন ,তা নিয়ে তুলছে প্রশ্ন ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.