রাজ্যসভায় লাগাতার বিক্ষোভের জেরে একদিনের জন্য সাসপেন্ড করা হল তৃণমূলের ছয় সাংসদকে

নদীয়া নিউজ ২৪ ডিজিটাল: রাজ্যসভার ওয়েলে নেমে বিক্ষোভের জের। লাগাতার বিক্ষোভের জেরে একদিনের জন্য সাসপেন্ড করা হল তৃণমূলের ছয় সাংসদকে। তালিকায় রয়েছেন দোলা সেন, মহম্মদ নাদিমুল হক, আবির রঞ্জন বিশ্বাস, শান্তা ছেত্রী, অর্পিতা ঘোষ এবং মৌসম নুর।

পেগাসাস ইস্যুতে অধিবেশন শুরুর দিন থেকেই সরকারকে কোণঠাসা করার চেষ্টা করছে তৃণমূল। ফোনে আড়ি পাতা ইস্যু নিয়ে বিরোধীদের মধ্যে সবথেকে বেশি সরব এরাজ্যের শাসকদলই। বাদল অধিবেশনের শুরু থেকেই লাগাতার সংসদের দুই কক্ষে বিক্ষোভ দেখিয়ে আসছে তাঁরা।

এর আগে দুই তৃণমূল সাংসদের আচরণ নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন খোদ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি (Narendra Modi)। তৃণমূল সাংসদ শান্তনু সেন যেভাবে তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রীর হাত থেকে কাগজ কেড়ে নিয়ে ছিঁড়ে ফেলেছিলেন, আবার ডেরেক ও ব্রায়েন (Derek O Brien) যেভাবে সংসদের বিল পাশ করানোকে ‘পাপড়ি চাট’ বানানোর সঙ্গে তুলনা করেছেন, প্রধানমন্ত্রীর নজরে সেটা ‘সংসদ ভবন এবং মানুষের অপমান।’

এদিকে থেমে থাকেনি তৃনমুলও। পালটা টুইটে তোপ দেগেছেন তৃণমূল সাংসদ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ও। তিনি লেখেন, ‘আমাদের সাংসদদের সঙ্গে এই আচরণ প্রমান করে যে ৫৬ ইঞ্চির গডফাদার হার স্বীকার করে নিয়েছেন। আপনি আমাদের সাসপেন্ড করতে পারেন, কিন্তু আমাদের চুপ করাতে পারবেন না। শেষ রক্তবিন্দু পর্যন্ত মানুষের জন্য লড়াই করব।’

উল্লেখ্য,দুই শিবিরের টানাপোড়নে বিগত দু’সপ্তাহে প্রায় প্রতিদিনই দফায় দফায় মুলতবির সাক্ষী হয়েছে লোকসভা ও রাজ্যসভা। এর আগে রাজ্যসভায় চেয়ারম্যান বেঙ্কাইয়া নায়ডুও বিরোধী সাংসদদের আচরণে ক্ষোভপ্রকাশ করেছেন। এদিন সরাসরি ৬ TMC সাংসদকে কার্যত গোটা দিনের জন্য সাসপেন্ড করে দিলেন তিনি। বিগত কয়েক দিনের মতো আজও অধিবেশন শুরুর পর থেকেই বিক্ষোভ দেখাতে থাকেন ওই তৃণমূল সাংসদরা। যার জেরে তাঁদের গোটা দিনের জন্য অধিবেশন ছেড়ে বেরিয়ে যাওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *