প্রতিবন্ধী ছেলের জীবন বাঁচাতে ৩০০ কিমি সাইকেল চালিয়ে ওষুধ আনলেন বাবা

নদীয়া নিউজ ২৪ ডিজিটাল: লকডাউনে বন্ধ ট্রেন সহ অন্যান্য পরিবহন ব্যাবস্থা । এমন পরিস্থিতিতে ছেলেকে বাঁচানোর জন্য ৩০০ কিমি সাইকেল চালিয়ে ছেলের জন্য ওষুধ আনলো এক বাবা । কর্ণাটকের মাইশুরের কোপপালু গ্রামের বাসিন্দা ৪৫ বছর বয়সী আনন্দ তার ছেলের ওষুধ আনতে বেঙ্গালুরু পৌঁছান সাইকেলে ৩০০ কিমি পথ অতিক্রম করে ।

“টানা আঠেরো বছর বয়স পর্যন্ত ওষুধ খেয়ে গেলে, আমার ছেলে স্বাভাবিক হবে, এটাই বলেছে চিকিৎসকেরা, এমনটাই জানিয়েছেন ৪৫ বছরের যুবক আনন্দ। দিনমজুর আনন্দের হাতে পয়সাও খুব বেশি ছিল না, যে প্রাইভেট গাড়ি ভাড়া করে ওষুধ কিনবে। তাই ঘরের সাইকেল নিয়েই জেদের বসত ওষুধ কিনতে ব্যাঙ্গালোর গিয়েছিলেন তিনি।

সংবাদ সংস্থা এএনআইকে তিনি আরও জানান, ‘আমি দেখলাম এই বুধবার ট্যাবলেট গুলো শেষ হয়ে যাবে, তাই রবিবার থেকে সাইকেল চালানো শুরু করলাম। রাতেই পৌঁছে গিয়েছিলাম, তারপর ওই এলাকায় রাতে মন্দিরে শুয়েছিলাম। সোমবার ট্যাবলেট কিনি আর আজ সকালে ফিরে আসি।’ কিন্তু জার্নিটা মোটেই সুবিধাজনক ছিল না, সূর্যের কড়া রোদ আর সাইকেল চালানোর ক্লান্তি কষ্ট পেতে হয়েছে তাঁকে। এমনকি মাঝেমধ্যেই পুলিশের মুখোমুখি হয়ে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করা হয়েছে তাঁকে। সঙ্গে টাকা ছিল না, তাই না খেয়েই ওষুধ আনতে যেতে হয়েছে। কিন্তু হাল ছেড়ে দেয়নি

Leave a Reply

Your email address will not be published.